পাটগ্রামে আলু ৪৫ থেকে ৫০ টাকা কেজি; প্রশাসন নিরব!

Tista Tista

Express

প্রকাশিত: ৫:০৬ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১৫, ২০২০

পাটগ্রাম (লালমনিরহাট) প্রতিনিধি:

সরকারি বেঁধে দেওয়া দর উপেক্ষা করে  লালমনিরহাটের পাটগ্রাম উপজেলায় স্থানীয় বাজারে প্রতি কেজি আলু বিক্রি হচ্ছে  ৪৫ থেকে ৫০ টাকা দরে। মাত্র এক ১ সপ্তাহ  ব্যবধানে পাইকারি বাজারে প্রতি কেজি আলুর দাম ৩৫ টাকা থেকে বৃদ্ধি পেয়ে ৪২  টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

এদিকে  খুচরা বাজারে আলুর প্রকারভেদে ৪৫ থেকে ৫০ টাকা বিক্রি হচ্ছে। অস্বাভাবিক ভাবে আলুর দাম বৃদ্ধি পাওয়ায় বিপাকে পড়েছে নিম্ন আয়ের মানুষ। ফলে অনেককে চাহিদার তুলনায় আলু কম কিনতে দেখা গেছে।  হঠাৎ করে ব্যবসায়ীরা আলুর দাম বাড়িয়ে দেওয়ায় সল্প আয়ের মানুষের নাভিশ্বাস উঠেছে। দ্রুত বাজার মনিটরিংয়ের দাবি করেছে অনেকে।

পাটগ্রাম বাজারের সবজি ক্রেতা জগতবেড় ইউনিয়নের বাসিন্দা তালিমুল ইসলাম ও পাটগ্রাম ইউনিয়নের আজিজুল ইসলাম  বলেন,‘ এখন যে ভাবে দিন দিন আলুর দাম বৃদ্ধি পাচ্ছে তাতে করে আমাদের গরিব মানুষের জন্য আলু কেনা দুষ্কর হয়ে পড়েছে। দাম বৃদ্ধি পাওয়ায় বাধ্য  হয়ে  প্রয়োজনের তুলনায় কম কিনছি। বাজারে এ রকম আলুর দাম থাকলে আমাদের সল্প আয়ের গরীব মানুষের আলু কেনা খুবই কষ্টকর হবে। প্রশাসন এ ব্যাপারে কোন ব্যবস্থা নিচ্ছে না।’

পাটগ্রাম পূর্ব বাজারের খুচরা কাঁচামাল বিক্রেতা মুকুল ইসলাম ও নুরুল হুদা জানান,‘ আড়তে বর্তমানে  প্রতি কেজি আলু  পাইকারী বাজারে ৪২  টাকা কিনতে হচ্ছে। তাই  আমরা আলু ৪৫ টাকা খুচরা বিক্রি করছি।  আগে যারা আলু ৫ কেজি কিনতো বর্তমানে দাম বৃদ্ধি পাওয়ায় তাঁরা ১ থেকে ২ কেজি করে কিনছে।’

পাটগ্রাম বাজারের মেসার্স রাবিয়া ভান্ডার আড়ৎতের মালিক মো. নজরুল ইসলাম বলেন,‘ লালমনিরহাটসহ  বিভিন্ন আলুর (কোল্ডস্টোরেজ) মোকামে দাম বৃদ্ধি পাওয়ায় সেখানে আলু কিনতেছি ৩৯ টাকা ২৫ পয়সা দরে। এর ফলে পাটগ্রামে আমরা প্রতি কেজি আলু ৪২ টাকা দরে পাইকারি বিক্রি করছি।,

এ বিষয়ে পাটগ্রাম উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) কামরুন নাহার বলেন,‘বাজার যাচাই করে আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’