লামায় দ্বিতীয় বারের মত বিজয়ী আ.লীগ প্রার্থী মো. জহিরুল ইসলাম

প্রকাশিত: ২:০৮ পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ১৭, ২০২১

সুজন চৌধুরী, বান্দরবান প্রতিনিধিঃ

শান্তিপূর্ণভাবে বান্দরবানের লামায় পৌরসভার নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে। শনিবার (১৬ জানুয়ারি) সকাল ৮টা থেকে ৯টি ওয়ার্ডে কেন্দ্রগুলোতে দীর্ঘ লাইনে দাঁড়িয়ে স্বতঃস্ফূর্তভাবে ও উৎসবমুখর পরিবেশে ভোটধীকার প্রয়োগ করেছে ভোটাররা। প্রতিটি কেন্দ্রে নারী ভোটারদের উপস্থিতি ছিল লক্ষ্য করার মতো।
কেন্দ্রের এজেন্ডের তথ্য মতে, নৌকা মার্কায় ৯ হাজার ৪শত ৫ ভোট, ধানেরশীষ মার্কায় ১ হাজার ৬৫ ভোট ও লাঙ্গল মাকায় ৮৮ ভোট পেয়েছে। তন্মধ্যে ৮ হাজার ২শত ৫২ ভোটের ব্যবধানে নৌকা প্রার্থী মো. জহিরুল ইসলাম বেসরকারিভাবে বিজয়ী হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদন্ধী মো. শাহীন ধানেরশীষ মার্কায় ভোট পেয়েছেন ১ হাজার ৬৫ ভোট। পুরুষ কাউন্সিলর পদে যারা বিজয়ী হয়েছেন, ১নং ওয়ার্ডে মো. বশির, ২নং ওয়ার্ডে মো. হোসেন বাদশা, ৩ নং ওয়ার্ডে মো. সাইফ উদ্দিন, ৪নং ওয়ার্ডে মো. রফিক, ৫নং ওয়ার্ডে মো. আলী আহম্মদ, ৬নং ওয়ার্ডে মমতাজুল ইসলাম, ৭নং ওয়ার্ডে মো. কামাল উদ্দিন, ৮নং ওয়ার্ডে মো. ইউসূফ ও ৯নং ওয়ার্ডে উশৈথোয়াই মার্মা, ১,২,৩ সংরক্ষিত মহিলা আসনে সাকেরা বেগম, ৪,৫,৬ আসনে মরিয়ম বেগম ও ৭,৮,৯ আসনে জাহানারা বেগম কেন্দ্রে তথ্যঅনুযায়ী জয়ী হয়েছেন।
এদিকে, এবারই প্রথম ভোটকেন্দ্রগুলোতে শনিবার সকালে ব্যালট পেপার পৌঁছানো হয়েছে। নির্বাচন কমিশন বিশেষ গুরুত্ব দিয়ে প্রতিটি কেন্দ্রে একজন ম্যাজিস্ট্রেটসহ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা নিরাপত্তায় নিয়োজিত রয়েছে। কেন্দ্রে শাক্তিপূর্ণ পরিবেশ রক্ষা করার জন্য র‌্যাবের ৩টি স্ট্রাইকিং ফোর্স, দুই প্লাটুন বিজিবি, পুলিশের মোবাইল টিম, প্রতি কেন্দ্রে অফিসারসহ ৮ জন পুলিশ সদস্য এবং ৫ জন পুরুষ ও ৩ জন নারী আনসার সদস্য দায়িত্ব পালন করছেন।
কলিঙ্গাবিল পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রেভোট দিয়ে বের হয়ে অংক্যহ্লা মার্মা বলেন, এবারের ভোটের পরিবেশ সুন্দর। দীর্ঘ লাইনে দাঁড়িয়ে আমরা ভোট দিয়েছি। কেন্দ্রের বাইরে তখনও অনেক ভোটার লাইনে দাঁড়িয়ে রয়েছেন। ভোটারের দীর্ঘ লাইন সবকয়টি কেন্দ্রে লক্ষ্য করা গেছে।
আওয়ামী লীগ সমর্থিত নৌকা প্রতীকের প্রার্থী মো. জহিরুল ইসলাম বলেন, মানুষ শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোট হয়েছে। জনগণ তাকে প্রত্যক্ষ ভোট দিয়ে নির্বাচিত করবেন বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন।
লামা পৌরসভা নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসারের কার্যালয় সূত্র জানায়, লামা পৌর এলাকার মোট ভোটার সংখ্যা ১৩ হাজার ৩৮৯ জন। তার মধ্যে পুরুষ ৭ হাজার ৩ জন এবং মহিলা ভোটার ৬ হাজার ৩৮৬ জন। এবারের নির্বাচনে মেয়র পদে ৩ জন, সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদে ৯ জন এবং সাধারণ কাউন্সিলর পদে ২৬ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্ধিতা করছেন। ৯টি ভোটকেন্দ্রের ৩৯টি ভোটকক্ষে সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত একটানা ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। এসকল ভোটকেন্দ্রে ৯ জন প্রিজাইডিং, ৩৯ জন সহকারী প্রিজাইডিং এবং ৭৮ জন পোলিং অফিসার ভোটগ্রহণের দায়িত্ব পালন করছেন।
নির্বাচনে সহকারী রির্টানিং অফিসার লামা উপজেলা নির্বাচন অফিসার আলমগীর হোসাইন জানান, ভোটাররা যাতে নির্বিন্নে ভোটকেন্দ্রে গিয়ে ভোট প্রদান করতে পারে, সে জন্য ভোটারদের নিরাপত্তা ও ভোটকেন্দ্রের আইনশৃঙ্খলা রক্ষার জন্য আইনশৃঙ্খলা বাহিনী মোতায়ন করা হয়েছে।

জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও রিটার্নিং অফিসার মোহাম্মদ রেজাউল করিম জানান, কোনো ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা ছাড়াই সুষ্ঠুভাবে সকল কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ চলছে। কোনো প্রার্থী এখনো কোনো অভিযোগ করেন নি।